ইয়াবাসহ চাকরিচ্যূত দুই সেনা গ্রেপ্তার

0

লাইভ নারায়ণগঞ্জ : ৯৮০পিস ইয়াবাসহ দুই ইয়াবা পাচারকারীকে গ্রেপ্তার করেছে র‌্যাব।

২৪মার্চ (মঙ্গলবার) দিবাগত রাত ৩টা ৩০মিনিটে সিদ্ধিরগঞ্জের চিটাগাংরোড থেকে তাদের গ্রেপ্তার করা হয়।

গ্রেপ্তারকৃত দু’জন হলেন- মাহেন্দ্র নাথ(৩২) ও মো. জিহাদ ইসলাম(৩২)।

এসময় তাদের কাছ ৯৮০ পিস ইয়াবা ও মাদক বিক্রির নগদ ৫৯হাজার টাকা উদ্ধার করা হয়।

র‌্যাব-১১ এর অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মো. আলেপ উদ্দিন স্বাক্ষরিত এক প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়।

গোপনসূত্রে জানা যায় কক্সবাজারের ২জন ইয়াবা পাচারকারী দীর্ঘদিন ধরে নিয়মিতভাবে অভিনব কৌশলে বাসযোগে ইয়াবা পাচার করে আসছে। এরই ধারাবাহিকতায় অদ্য ২৫ মার্চ ২০২০ খ্রিষ্টাব্দে উক্ত ইয়াবা পাচারকারীরা একই কৌশলে কক্সবাজার হতে বাসযোগে ঢাকায় ইয়াবা নিয়ে আসছে। উক্ত সংবাদের ভিত্তিতে র‌্যাব-১১ এর একটি আভিযানিক দল রাত ০৩৩০ ঘটিকার সময় নারায়ণগঞ্জের সিদ্ধিরগঞ্জ থানাধীন ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কে চিটাগাংরোডে চেকপোষ্ট স্থাপন করে। চেকপোষ্টে গাড়ী থামিয়ে তল্লাসীকালে কক্সবাজার হতে ঢাকাগামী ষ্টার লাইন সি­পিং কোচ থেকে নেমে দ্রুত গতিতে পালিয়ে যাওয়ার সময় সন্দিগ্ধ হিসেবে মাহেন্দ্র নাথ ও মোঃ জিহাদ ইসলাম’কে আটক করা হয়। আটকের পর প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে মাহেন্দ্র নাথ এবং মোঃ জিহাদ ইসলামের কথা ও আচরণে অসংলগ্নতা ও অস্বাভাবিকতা প্রকাশ পেলেও ইয়াবা পাচারের বিষয়ে তারা অস্বীকার করে। অতঃপর নিবিড়ভাবে জিজ্ঞাসাবাদ এবং তাদের দেহ তল্লাশী করে ৯৮০ পিস ইয়াবা উদ্ধার করা হয়।

গ্রেফতারকৃতদেরকে জিজ্ঞাসাবাদ ও প্রাথমিক অনুসন্ধানে জানা যায় গ্রেফতারকৃত মহেন্দ্র নাথ এর বাড়ি লালমনিরহাট জেলার কালিগঞ্জ থানাধীন দক্ষিণ গোপাল রায় এলাকায় এবং মোঃ জিহাদ ইসলাম এর বাড়ি ঢাকা জেলার ধামরাইল থানাধীন বেলীশ্বর এলাকায়। গ্রেফতারকৃত আসামী ০২জনই চাকুরীচ্যুত সেনা সদস্য। মহেন্দ্র নাথ ২০১৭ সালে চুরির দায়ে তাকে চাকুরীচ্যুত করা হয় এবং জিহাদ ইয়াবা সেবনের দায়ে ২০১৮ সালে চাকুরীচ্যুত করা হয়। চাকুরীচ্যুত হয়ে তারা মাদক ব্যবসা শুরু করে। সে দীর্ঘদিন যাবৎ অভিনব কৌশলে কক্সবাজারের টেকনাফ হতে বাসযোগে নারায়ণগঞ্জ, ঢাকা ও এর আশপাশের এলাকায় অভিনব পন্থায় নিষিদ্ধ মাদকদ্রব্য ইয়াবা পাচার ও সরবরাহ করে আসছিল। জিজ্ঞাসাবাদে আরো স্বীকার করে যে, তারা পরস্পর যোগসাজসে দীর্ঘদিন যাবৎ মাদক ব্যবসা করে আসছে এবং তাদের একমাত্র পেশা ছিল মাদক ব্যবসা।

গ্রেফতারকৃত আসামীদের বিরুদ্ধে আইনানুগ কার্যক্রম প্রক্রিয়াধীন।

0