তুমি লাশ ফালাবে আর আমি কি আঙ্গল চুসব: কাজিম উদ্দিন

বন্দর করেসপন্ডেন্ট, লাইভ নারায়ণগঞ্জ: সদ্য অনুষ্ঠিতব্য কলাগাছিয়া ইউনিয়ন পরিষদের নির্বাচন পরবর্তী সহিংসতায় প্রবীন আওয়াীলীগ নেতা জহিরে উপর বর্বরোচিত হামলার প্রতিবাদে এক প্রতিবাদ সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে।

২৬ নভেম্বর শুক্রবার বিকেল ৪টায় বন্দর উপজেলার ফরাজিকান্দাস্থ উপজেলা আওয়ামীলীগের প্রধান কার্যালয়ে এ সভা অনুষ্ঠিত হয়।

প্রতিবাদ সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে উপজেলা আওয়ামীলীগের সাধারন সম্পাদক কাজিম উদ্দিন প্রধান নব-নির্বাচিত চেয়ারম্যান দেলোয়ার প্রধানকে চেলেঞ্জ জানিয়ে বলেন, তুমি ঘারমোড়া এক সংবধর্ণা অনুষ্ঠানে বলেছ, তুমি চাইলে ফরাজিকান্দা এলাকায় ৪/৫টি হাত পরে যেত। আমি তোমাকে চেলেঞ্জ করে বলছি তুমি পারলে করে দেখাও। তুমি ফরাজিকান্দা এলাকায় লাশ ফালাবে আর আমি কি আ্ঙ্গল চুসব।

কলাগাছিয়া ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সভাপতি আমিরুজ্জামান আমিরের সভাপতিত্বে প্রতিবাদ সভায় কাজিম উদ্দিন প্রধান আরো বলেন, আমি ৫ আসনের এমপি শামীম ওসমান ভাইকে শ্রদ্ধা ও সম্মান করি। আমি তার রাজনিতী করি। আমি তার কথায় নির্বাচন করেছি। তিনি না বললে আমি নির্বাচন করতাম না। নির্বাচন হয়েছে শান্তি প্রিয় ভাবে। আমি শামীম ভাইয়ের কথায় নির্বাচন মেনে নিয়েছি। নির্বাচনের পর দিন আমার নেতাকর্মীদের বাড়ি ঘরে হামলা দোকান পাট ভাংচুর গরুর খামারে বিষ প্রয়োগ করেছে। তুমি কিভাবে নির্বাচিত হয়েছ তুমি নিজেই জান। নেতৃবৃন্দও জানে। আমার নেত্রী শেখ হাসিনা অন্যায়কে পশ্রয় দেয় না। তুমি দেলোয়ার আর কোন ছাড় পাবে না। আপনারা লাঙ্গল মার্কা আওয়ামীলীগদের চিহিৃত করুন। তাদের নাম আমাদের কাছে পাঠান। জেলা আওয়ামীলীগ ও কেন্দ্রীয় আওয়ামীলীগ এদের বিরুদ্ধে যথাযথ ব্যবস্থা গ্রহন করবে।

কলাগাছিয়া ইউনিয়ন ছাত্রলীগের সাধারন সম্পাদক সোয়েব মোহাম্মদ লিটনের সঞ্চালনায় প্রতিবাদ সভায় বক্তব্য রাখেন বন্দর উপজেলা আওয়ামলিীগ নেতা আব্দুল্লাহ বাবু, কলাগাছিয়া ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সাধারন সম্পাদক একেএম ইব্রাহিম কাশেম, যুগ্ম সম্পাদক আক্তার হোসেন, বন্দর থানা শ্রমিকলীগের সাধারন সম্পাদক রাফিয়ান, বন্দর উপজেলা আওয়ামীলীগ নেতা সাহাদাত হোসেন, সমাজ সেবক হাজী হান্নান প্রধান ও কলাগাছিয়া ইউনিয়ন ছাত্রলীগের সভাপতি শাহীন তাহেরী সিনহা প্রমুখ। প্রতিবাদ সভায় উপস্থিত ছিলেন কলাগাছিয়া ইউনিযন যুবলীগের সাধারন সম্পাদক মোক্তার উদ্দিন মুক্তু, শ্রমিকলীগ নেতা নিজাম, মাহাবুব চৌধূরী, ওয়াসিম দেওয়ানজী, আসাদ মাষ্টার, যুবলীগ নেতা জাহাঙ্গীর, বশির, আশাদুল্লাসহ আওয়ামীলীগ যুবলীগ ছাত্রলীগসহ অঙ্গ সংঘঠনের নেতৃবৃন্দ।