দুই চাচাতো বোনকে অপহরণ করে ২০ দিন যাবৎ ধর্ষণ

0

লাইভ নারায়ণগঞ্জ: প্রেমের ফাঁদে ফেলে অপহরণ করা হয় চাচাতো দুই বোনকে। পরে একই কক্ষে ২০ দিন যাবৎ আটকে রেখে দুই বোনকে একাধিকবার ধর্ষণ করে দুই ধর্ষক। সিদ্ধিরগঞ্জের আইয়ুব নগর এলাকা থেকে ৭ম শ্রেণীর এক ছাত্রী ও তার চাচাতো বোনকে কৌশলে অপহরণকরে দুই বন্ধু।
শুক্রবার দিবাগত মধ্যরাতে ফতুল্লা থানাধীন গিরিধারা এলাকার জনৈক সেলিনা আক্তারের বাসা থেকে অপহৃত দুই কিশোরিকে উদ্ধার করে সিদ্ধিরগঞ্জ থানার উপ-পরিদর্শক হাফিজুর রহমান।
গ্রেফতারকৃত বর্বর দুই ধর্ষক হল- আল-আমিন (২২) ও তার বন্ধু রিয়াদ (২৫)। এর আগে ২১ জুন ধর্ষিতার বাবা সিদ্ধিরগঞ্জ থানায় একটি জিডি এন্ট্রি করে।
মামলা সূত্রে জানা গেছে, ২ জুন বিকাল সাড়ে ৩ টায় সিদ্ধিরগঞ্জের আইয়ুবনগর এলাকা থেকে দুই চাচাতো বোনকে অপহরণ করে আল-আমিন ও তার বন্ধু রিয়াদ। পরে তাদেরকে ফতুল্লা থানাধীন গিরিধারা এলাকার জনৈক সেলিনা আক্তারের বাসায় নিয়ে যায় ঐ দুই বন্ধু। ঐ বাসার এক কক্ষেই দুই কিশোরি বোনকে নিয়ে রাত্রি যাপন করতে থাকে। অপহরণের ওই রাত থেকেই একই কক্ষে দুই বন্ধু জোরপূর্বক অসংখ্যবার তাদেরকে ধর্ষণ করে বলে উল্লেখ করা হয় মামলায়। তাদেরকে তাদের স্বজনরা খোঁজাখুঁজি করে না পেয়ে ২১ জুন এক অপহৃতার বাবা সিদ্ধিরগঞ্জ থানায় একটি জিডি করে।
ঐ জিডির সূত্র ধরে সিদ্ধিরগঞ্জ থানার উপ-পরিদর্শক হাফিজুর রহমান ওই রাতেই নারায়ণগঞ্জের ফতুল্লা থানার গিরিধারা এলাকা হতে তাদেরকে উদ্ধার এবং দুই ধর্ষককে গ্রেফতার করে।
ধর্ষক আল-আমিনের পিতার নাম বাদল। ধর্ষক রিয়াদের পিতার নাম আজিজ হোসেন। তদের বাড়ি ভোলার চরফ্যাশন থানার কুলসুমবাগ এলাকায়।
শনিবার (২২ জুন) দুপুরে তাদেরকে আদালতে প্রেরণ করা হয়েছে বলে জানিয়েছেন সিদ্ধিরগঞ্জ থানার পরিদর্শক (তদন্ত) সেলিম মিয়া।

0