না.গঞ্জে ২০ দিনে পানিতে ডুবে ৫ শিশুর মৃত্যু

0

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট, লাইভ নারায়ণগঞ্জ: বর্ষা মৌসুমের শুরুতে পানিতে ডুবে নারায়ণগঞ্জে ৫ শিশুর মৃত্যু হয়েছে। গত ২০ দিনে জেলার ২ উপজেলায় শিশুদের এ মর্মান্তিক মৃত্যুর ঘটনা ঘটে।

নারায়ণগঞ্জ জেলায় খেলাধুলা করার সময় পুকুরে বা ডোবার পানিতে ডুবে ৬ শিশুর মৃত্যু হয়েছে। এর মধ্যে সব চেয়ে বেশি আড়াইহাজারে ৫, সোনারগাঁয়ে এক শিশুর মৃত্যু হয়। এসব শিশুর বয়স ছয় মাস থেকে ১০ বছরের মধ্যে।

মৃত বেশির ভাগ শিশুর মা বাড়ির পাশে সন্তানকে খেলতে দিয়ে সংসারের কাজে ব্যস্ত হয়ে পড়ায় এমন ঘটনা ঘটছে বলে মৃত্যুর খবর বিশ্লেষণে জানা গেছে।

আড়াইহাজার

আড়াইহাজার জেলায় গত এক মাসে পানিতে ডুবে ৪ শিশুর মৃত্যু হয়েছে।

গত মাসে পানিতে ডুবে প্রথম মৃত্যু ১৮ জুন। টানা কয়েকদিন ভারী বর্ষনে জেলার অনেক স্থানেই জলাবদ্ধতা সৃষ্টি হয়েছে। বাড়ির পাশের পানি থেকে দুই বছরের শিশু মোস্তাকিমকে মৃত অবস্থায় উদ্ধার করা হয়।

সে উচিৎপুরা ইউনিয়নের রায়পুরা গ্রামের এমদাদুলের সন্তান।

২৯ জুন আড়াইজার উপজেলার সদর পৌরসভার গাজীপুরা গ্রামের পানিতে ডুবে হাছিব নামে আড়াই বছরের এক শিশুর মৃত্যু হয়।

৫ জুলাই উপজেলার মাহমুদপুর ইউনিয়নের শ্রীনিবাসদি গ্রামে বাড়ির পাশের ডোবায় গোসল করতে গিয়ে মালয়েশিয়া প্রবাসী কাউসারের মেয়ে সুমাইয়া (৭) এবং একই গ্রামের বাসেদের মেয়ে আরিফা (৯) এর মৃত্যু হয়।

সোনারগাঁ

সবশেষ ৭ জুলাই সোনারগাঁও উপজেলার সনমান্দী ইউনিয়নের চরভূলুয়া গ্রামে বাসার পাশেই খেলতে গিয়ে পুকুরের পানিতে ডুবে রামিন নামে একটি শিশুর মৃত্যু হয়|

সচেতন মহল বলছেন, পানির প্রতি শিশুদের এমনিতেই আলাদা ঝোঁক রয়েছে। তাই বর্ষা মৌসুমে তাদের প্রতি অতিরিক্ত নজর রাখা উচিত। পরিবারের সদস্যদের অসচেতনতার কারণে এমন মৃত্যুর ঘটনা ঘটছে।

0