নেতাকর্মীদের উপর হাত তুললে, ভেঙ্গে দেওয়ার ক্ষমতা রাখি: শাহ্ নিজাম

0

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট, লাইভ নারায়ণগঞ্জ: যখনই আমরা গণতন্ত্রের কথা বলি, যখনই আমরা জাতির জনক বঙ্গবন্ধুর কথা বলি, যখনই আমরা জননেত্রী শেখ হাসিনার কথা বলি। তখনই আমাদেরকে বারবার আঘাত করা হয়। আপনাদের প্রিয় নেতা একেএম শামীম ওসমানকে হত্যা করার জন্য যে আঘাত করা হয়েছিলো ২০০১ সালের ১৬ জুন।

শনিবার (২৭ অক্টোবর) বিকালে শহরের মিশনপাড়ার রামকৃষ্ণ মিশনের সামনে শামীম ওসমানের ডাকা জনসভায় উপস্থিত হয়ে এ কথা বলেন মহানগর আওয়ামীলীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক শাহ্ নিজাম।

শাহ্ নিজাম আরো বলেন, অপরাধ কি ছিলো? অপরাধ ছিলো একটাই- আমরা মুজিবের কথা বলি। অপরাধ ছিলো একটাই- আমরা স্বাধীনতার কথা বলি। অপরাধ ছিলো একটাই-আমরা বাংলাদেশের কথা বলি। অপরাধ ছিলো একটাই- আমরা রাজাকারের বিরুদ্ধে কথা বলি। আর এ অপরাধেই সেদিন বোমা হামলা করা হয়েছে। এরপরেও মামলা হয়েছে, হামলা হয়েছে, নেতাকর্মীকে হত্যাও করা হয়েছে। কিন্তু আমরা জননেতা একেএম শামীম ওসমানের নির্দেশে মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর নেতৃত্বে বাংলাদেশকে ক্ষুদা মুক্ত বাংলাদেশ গড়ার জন্য সংগ্রাম করে যাচ্ছি।

শাহ্ নিজাম বলেন, আমাদের উপর হামলা করুক, মামলা করুক, আমাদের হত্যাও করুক। তারপরেও দুঃখ পাবো না। কিন্তু নারায়ণগঞ্জের মাটিতে রাজাকার, আল-বদর, আল-শামসের কথায়, কেউ যদি আমাদের নেতাকর্মীদের উপর হাত তোলে। তাহলে সেই হাত আমরা ভেঙ্গে দেওয়ার ক্ষমতা রাখি।

সভাস্থলে উপস্থিত হয়েছেন জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আবু হাসনাত শহীদ মো. বাদল, মহানগর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এড. খোকন সাহা, সহ সভাপতি চন্দন শীল, এড. ওয়াজেদ আলী খোকন, মহানগর আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক শাহ্ নিজাম, সিদ্ধিরগঞ্জ থানা আওয়ামী লীগের সভাপতি মুজিবুর রহমান, ফতুল্লা থানা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদর এম শওকত আলী, সোনারগাঁ থানা আওয়ামী লীগের আহ্বায়কশামসুল ইসলাম ভূইয়া, জেলা মহিলা আওয়ামী লীগের সভাপতি প্রফেসর শিরিন বেগম, জেলা ছাত্রলীগের সাবেক সভাপতি এহসানুল হাসান নিপু, জেলা আইনজীবী সমিতির সাধারণ সম্পাদক মোহসিন মিয়া, মহানগর মহিলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ইসরাত জাহান স্মৃতি, ফতুল্লা ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি মিছির আলী প্রমুখ৷

ভিডিও দেখতে ক্লিক করুন

 

0