পাঠানটুলীতে স্কুলছাত্রীর ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার, পরিবারের দাবি ‘হত্যা’

0

সিদ্ধিরগঞ্জের পাঠানটুলি হতে এক স্কুলছাত্রীর ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার করেছে থানা পুলিশ। বৃহস্পতিবার (১আগষ্ট) দুপুরে লাশটি ময়নাতদন্তের জন্য সদর জেনারেল হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে।

নিহত ওই ছাত্রী নাম রোমানা আক্তার (১৪)। তার পিতা মন্তাজ মিয়া রূপগঞ্জের রূপসী এলাকার একটি কারখানায় কাজ করেন। মা লিলি বেগম গার্মেন্ট কর্মী। রোমানা গোদনাইলের লক্ষ্মীনারায়ণ কটন মিল হাইস্কুলের ৭ম শ্রেনীর ছাত্রী।

সিদ্ধিরগঞ্জের পাঠানটুলি এলাকায় রাজা মিয়ার বাড়িতে তারা ভাড়া  থাকেন। পরিবারের দাবি রোমানাকে হত্যা করে লাশ ঝুলিয়ে রাখা হয়েছে।

নিহত রোমানা আক্তারের বড় বোন মোমেনা জানান, বুধবার তার বোন রোমানার কাছে বাড়িওয়ালা রাজা মিয়ার পুত্র সিয়াম ফ্রিজের ঠান্ডা পানি খেতে চায়। তখন রোমানা সিয়ামকে পানি খেতে দিয়ে বাড়ির বাইরে চলে আসে। কিন্তু সিয়ামের চাচী সেটাকে অসামাজিক কার্যকলাপ আখ্যা দিয়ে রোমানাকে বিতর্কিত করার চেষ্টা করে। ওই ঘটনার পরে বাড়িওয়ালা রাজা মিয়া রোমানাকে মারধর করে। বৃহস্পতিবার সকালে বাড়িতে মেজ বোন আমেনা ও ছোট বোন রোমানা ছিল। সকাল ১১ টার দিকে আমেনা বাড়ির বাইরে গিয়ে মুঠোফোনে আমার (বড় বোন মোমেনা) সঙ্গে কথা বলছিল ও বুধবারের ঘটনা জানাচ্ছিল। ফিরে গিয়ে রোমানার গলায় ওড়না দিয়ে ফাঁস অবস্থায় ঝুলন্ত লাশ দেখতে পায় আমেনা। ঘরের দরজা জানালা সবই খোলা ছিল। রোমানার পা মাটির সঙ্গে লাগানো ছিল। গলায় দাগ ছিলনা। জিহবাও তেমন একটা বের হয়নি।

সিদ্ধিরগঞ্জ থানার এসআই ইবরাহিম পাটোয়ারী বলেন, খবর শুনে ঘটনাস্থলে গিয়ে লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে। ময়নাতদন্তের রিপোর্ট পেলে প্রকৃত কারণ বোঝা যাবে। এ ঘটনায় বাড়িওয়ার বিরুদ্ধে মামলার প্রস্তুতি প্রক্রিয়াধীন।

0