ফতুল্লায় শেষ হাসিটা আবাহনীরই

0

লাইভ নারায়ণগঞ্জ: ৫০ ওভারের ম্যাচটাকে মনে হলো যেন টেস্ট খেলা। যে ম্যাচে সংগ্রাম করলেন দুই দলের ব্যাটসম্যানরা। শেষ হাসি অবশ্য হেসেছে ঐতিহ্যবাহী ক্লাব আবাহনী লিমিটেড। ফতুল্লার খান সাহেব ওসমানী স্টেডিয়ামে ঢাকা প্রিমিয়ার লিগের ম্যাচে তারা শাইনপুকুর ক্রিকেট ক্লাবকে হারিয়েছে ৫ উইকেট আর ৯ বল হাতে রেখে।

স্কোরলাইন দেখে মনে হচ্ছে, আবাহনী তো হেসেখেলেই জিতেছে। তবে বাস্তবতা ভিন্ন। পুরো ৫০ ওভার ব্যাট করে ৯ উইকেট হারিয়ে মাত্র ২০৩ রান তুলতে পারে শাইনপুকুর। এই রান তাড়া করতে গিয়েই ৪৮.৩ ওভার খেলতে হয়েছে আবাহনীকে।

শাইনপুকুরের ব্যাটসম্যানদে মধ্যে কেউ হাফসেঞ্চুরিও করতে পারেননি। ৫৭ বলে ৬ বাউন্ডারি আর ২ ছক্কায় গড়া আফিফ হোসেনের ৪৮ রানের ইনিংসটাকে তবু ওয়ানডের সঙ্গে মানানসই বলা যেতে পারে।

বাকিদের মধ্যে যারা টুকটাক রান পেয়েছেন তাদের স্ট্রাইকরেট পঞ্চাশের ঘরে। তৌহিদ হৃদয় ৭৪ বলে ৩৯, ধীমান ঘোষ ৪২ বলে ২২, সোহরাওয়ার্দি শুভ ৪৩ বলে অপরাজিত ২৪ রান করেন। যে ইনিংসগুলো আসলে দলের পুঁজি বড় করার জন্য যথেষ্ট ছিল না।

আবাহনীর মোসাদ্দেক হোসেন ৪০ রান খরচায় নিয়েছেন ৩টি উইকেট। ২টি করে উইকেট নাজমুল ইসলাম আর রুবেল হোসেনের।

লক্ষ্য মাত্র ২০৪ রানের। আবাহনীও ব্যাট করতে নেমে ধুঁকল। লক্ষ্য ছোট হওয়ায় তাদের অবশ্য ওত তাড়াহুড়ো ছিল না। তারপরও জয় তুলে নিতে খেলতে হলো শেষ পর্যন্ত।

ভারতীয় ওপেনার ওয়াসিম জাফর ১০৬ বলে ৪ বাউন্ডারির সাহায্যে করেন ৭৬ রান। নাজমুল হোসেন শান্ত ৫২ বলে খেলেন ৪২ রানের ইনিংস। ৫৭ বলে ৩৩ রান করেন সৌম্য সরকার।

শাইনপুকুরের শরিফুল ইসলাম ১০ ওভারে ৪৪ রান খরচায় নিয়েছেন ৩টি উইকেট।

0