ফেসবুকে ভিডিও ভাইরাল, চাকরী গেল বিআরটিসির ২ কর্মচারীর (ভিডিওসহ)

0

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট, লাইভ নারায়ণগঞ্জ: ঢাকা থেকে নারায়ণগঞ্জে যাওয়ার জন্য সরকারী ব্যবস্থাপনায় চলাচলা করে আসছে বিআরটিসি বাস সার্ভিস। সরকারি নিয়ামানুযায়ী টিকিট কেটে সড়কের বিভিন্ন পয়েন্ট থেকে যাত্রী উঠা-নামা করে বাসটিতে। কিন্তু টিকিটবিহীন যাত্রী বাসে উঠানোর অভিযোগ রয়েছে বিআরটিসির কর্মচারীদের বিরুদ্ধে। তারই ধারাবাহিকতায় বাসে টিকিটবিহীন যাত্রী উঠানোর দায়ে ২ কর্মচারীকে সামরিক বরখাস্ত করেছে বিআরটিসি নারায়ণগঞ্জ বাস ডিপো।

বুধবার (১০ জুলাই) সামাজিক গণমাধ্যম ফেসবুকে জনপ্রিয় গ্রুপ ‘নারায়ণগঞ্জস্থান’ এ একটি ভিডিও আপলোড করা হয়। ভিডিওতে দেখা যায়, যাত্রাপথে বাস থামিয়ে বিআরটিসির এক কর্মচারী টিকিটবিহীন যাত্রী উঠাচ্ছেন। বাস ভড়ে যাওয়ার পরও যাত্রী উঠছেন বাসটিতে। বাস আবার যাত্রা শুরু করলে, বাসের কর্মচারী দাঁড়িয়ে থাকা যাত্রীদের থেকে টাকা নিচ্ছেন।’

ভিডিওটি প্রকাশের পরই সোশ্যাল মিডিয়া বেশ আলোচনা-সমালোচনা শুরু হয়। অনেকেই সেই কর্মচারীদের চাকরী থেকে বের করে দেয়ার কথা বলেন। আর আমজনতার সেই দাবি পূরণ করেছে বিআরিটিসি নারায়ণগঞ্জ বাস ডিপো। জানা গেছে, ভিডিওতে থাকা সেই দুই কর্মচারীকেই বরখাস্ত করা হয়েছে। বহিস্কৃত কর্মচারীদের নাম হলো: মো. দেলওয়ার ও মো. মোতালেব হাওলাদার।

এব্যাপারে লাইভ নারায়ণগঞ্জকে বিস্থারিত তথ্য দিয়েছেন বিআরটিসি বাস ডিপো নারায়ণগঞ্জ এর ম্যানেজার (অপারেশন) মো. কামরুজ্জামান। তিনি জানান, ৯ জুলাই বিআরটিরি ২ কর্মচারী দেলওয়ার ও মোতালেব নারায়ণগঞ্জ থেকে গুলিস্তান পথে অশোক লিল্যান্ড (এসি) বাস ৪২৬১ এ কাজ করছিলেন। যাত্রার এক পর্যায়ে তারা টিকিবিহীন যাত্রী বাসে উঠান, যা বাসে থাকা একজন যাত্রী ভিডিও করে ফেসবুকে দেন। বিআরটিসি কর্তৃপক্ষ সে ভিডিও এর সন্ধান পেয়ে সেই কর্মচারীদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়।

মো. কামরুজ্জামান বলেন, টিকিট ছাড়া যাত্রী উঠানো বিআরটিসির নিয়ম লঙ্ঘন করেছে। তাই আমরা সেই কর্মচারীদের বহিস্কৃত করে এক দৃষ্টান্ত স্থাপন করেছি। এতে করে আগামিতে কোন কর্মচারী এ কাজ করবে না বলে আশা করছি।

0