মহানগর আ.লীগের যুগ্ম সম্পাদক শাহ নিজামের বিরুদ্ধে পুলিশের জিডি

0

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট, লাইভ নারায়ণগঞ্জ: শাহ্ নিজাম নারায়ণগঞ্জ মহানগর আওয়ামীলীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক । দেশের প্রভাবশালী সাংসদ শামীম ওসমানের স্নেহভাজন ও তার সকল আন্দোলন সংগ্রামের সৈনিক। শামীম ওসমানের বড় বড় সভা সমাবেশ সফল করার ক্ষেত্রে এই শাহ নিজাম সিদ্ধহস্ত। এবার তার বিরুদ্ধেই জিডি দায়ের করা হয়েছে।

শুক্রবার (২৯ মার্চ) দুপুরের দিকে ফতুল্লা মডেল থানার অফিসার-ইন-চার্জ (ওসি) শাহ মোহাম্মদ মঞ্জুর কাদের বাদী হয়ে ওই জিডিটি দায়ের করেন। জিডি নং ১৫৭৯।

প্রশাসনকে নিয়ে ‘বিরূপ মন্তব্য’ করায় সাংসদ শামীম ওসমানের ঘনিষ্ঠজন শাহ নিজামের বিরুদ্ধে এই জিডি দায়ের করা হয়েছে।

২৬ মার্চ পাগলা সিসিলি কমিউনিটি সেন্টারে একটি অনলাইন নিউজ পোর্টালের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে বক্তব্য রাখতে গিয়ে শাহ নিজাম তার বক্তব্যে বলেন ‘শামীম ওসমানের মতো নেতা থাকলে নারায়ণগঞ্জে প্রশাসনের দরকার হয় না। কারণ শামীম ওসমান মাদক, সন্ত্রাস, ভূমিদস্যুর বিরুদ্ধে জিহাদ ঘোষণা করেছেন। শামীম ওসমানের মতো নেতৃত্ব থাকলে প্রশাসনের প্রয়োজনও পড়ে না।’

ওই অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন, ফতুল্লা থানা পুলিশের অফিসার-ইন-চার্জ (ওসি) শাহ মঞ্জুর কাদের। আরো উপস্থিত ছিলেন জেলা আওয়ামীলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক মীর সোহেল আলী।

এদিকে শাহ নিজামের বিরুদ্ধে জিডি দায়েরের সত্যতা নিশ্চিত করেছেন ফতুল্লা থানা পুলিশের অফিসার-ইন-চার্জ (ওসি) শাহ মঞ্জুর কাদের।

এ প্রসঙ্গে মহানগর আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক শাহ নিজামের কাছে জানতে চাইলে তিনি জানান, আমরা প্রশাসনের বাইরে নই। যেহেতু আমরা নিজেরাই সরকারি দলের লোক। তাই প্রশাসনের বিরুদ্ধে বিরূপ মন্তব্য করার প্রশ্নই আসে না। ওই দিনের আমার বক্তব্য ভালো করে শুনলে বুঝতে পারবেন। আমি বলেছি, ‘শামীম ওসমান মাদক, সন্ত্রাস, ভূমিদস্যুর বিরুদ্ধে জিহাদ ঘোষণা করেছেন। আমাদের নেতা কর্মীরা সঠিক ভাবে দায়িত্বপালন করলে, প্রশাসনের কাজ সহজ হয়। প্রশাসনের দরকার পরে না।‘

শাহ নিজাম আরো বলেন, আমি বক্তব্যে বলেছি, যেহেতু আমাদের নেতা শামীম ওসমান আর তিনি যেহেতু নারায়ণগঞ্জে নেতৃত্ব দিচ্ছেন তাই আমরা যদি স্ব স্ব অবস্থানে ঠিক থাকি তাহলে প্রশাসনেরও দরকার হয় না। কিন্তু আমার পুরো বক্তব্য প্রকাশ না করে খন্ডিত অংশ প্রকাশ করায় অমন হয়েছে। আমি নিজেও কমিউনিটি পুলিশিংয়ের সাধারণ সম্পাদক। তাই প্রশাসনকে নিয়ে বিরূপ মন্তব্যের প্রশ্নই আসে না।

তিনি আরো বলেন, ‘তবে দুঃখ এখানেই, যারা বারবার প্রশাসন ও মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর বিরুদ্ধে কথা বলে তাদের বিরুদ্ধে জিডি হয়না।’

0