রিজভীকে শামীম ওসমান ‘এটা সভ্য লোকের ভাষা হতে পারে না’

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট, লাইভ নারায়ণগঞ্জ: ‘জাতীর পিতা কন্যা শেখ হাসিনা না আমাদের কাছে প্রধানমন্ত্রী, না দলের নেত্রী। তার সাথে আমাদের যে সম্পর্ক হয়েছে এটা একটা মায়ের সাথে সন্তানের সম্পর্কের মতো। রাজনীতিটা উনার কাছ থেকেই শিখেছি, আমার বাবা আমার গুরু ছিলেন। আমার মায়ের কাছ থেকে শিখেছি। বাঙ্গালী জাতির মুক্তির প্রশ্নে আল্লাহ রহমানুর রাহিম আল্লাহ গাফুরুর রাহিম বঙ্গবন্ধুর পরিবারের সাথে যদি এই দুই মেয়েকে (শেখ হাসিনা-শেখ রেহানা) হত্যা করা হতো। তাহলে আজকে হয়তো আমরা অন্য একটা বাংলাদেশ দেখতাম। যে আফগানিস্তানকে আফগানিস্তান দেখছে, হয়তো একটা ব্যর্থ রাষ্ট্রে পরিনত হইতাম।’

বুধবার (২৮ সেপ্টেম্বর) রাতে বেসরকারী একটি স্যাটেলাইট টেলিভিশনে ‘কেন মারমুখী রাজনীতি?’ বিষয়ে‘রাজককাহন’ নামক একটি টক-শোতে শিল্প মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত সংসদীয় স্থায়ী কমিটির সদস্য ও নারায়ণগঞ্জ-৪ আসনের সংসদ সদস্য একেএম শামীম ওসমান এসব কথা বলেন।

তিনি বলেন, এখনে অনেকেই অনেক সমালোচনা করবে বিরোধীতা করবে। কিন্তু আমি জানি মনে মনে হয়তো তারা এটা মনে করেন না। আমাদের দল করেন না কিন্তু অনেক মিডিয়াই প্রধানমন্ত্রীর জন্মদিনে লিখেছেন জাতির আশার বাতিঘর। এগুলা কিন্তু কোন আওয়ামী লীগের নেতার কথা না। এগুলা মিডিয়ার কথা, যাকে আমরা মনে করি এই সমাজের দর্পন।

তিনি আরও বলেন, এই যে আজকে পত্রিকা মিডিয়া এই লেখা গুলো লিখছে এগুলোর এচিপমেন্ট কি? যারা মাঠে রাজনীতি করছে, আমি ওনেস্টলী বলছি, যেমন নারায়ণগঞ্জে কিছুদিন আগে আমি একটা জনসভা করেছি। বিভিন্ন পত্-পত্রিকায় লিখেছে-দেখিয়েছে আমার ডাকে কোন পত্রিকা লিখেরেছ দেড় লাখ, কোন পত্রিকা লিখেছে ২ লাখ মানুষ হয়েছে। রাস্তাঘাট সব বন্ধ হয়ে গেছে।

আমি কিন্তু ওইদিনও বলেছি আমাদের অজস্র ভাষায় গালিগালাজ করা হয়েছে। ছোট্ট একটা শহীদ মিনার ৫শ’ মানুসের জায়গা হয় না। কিছুদিন আগের সিনিয়র একজন নেতা রিজভী সাহেব উনি গেলেন কি অসভ্য ভাষায় কথা বললেন, আমাকে তো বললেন ঠিক আছে, উনি বলতেই পারেন বড় ভাই। প্রধানমন্ত্রীকে নিয়ে উনি যেসব কথা বলেছেন, ওই ৫শ’ চেয়ারের মধ্যে বসিয়ে। প্রধানমন্ত্রী কিভাবে জাতির পিতার কবরে যান, লিপস্টিক দিয়ে যায়। এই ধরণের কথাবার্তা যখন হয়। তখন এটা কোন সভ্য লোকের ভাষা হতে পারে না। কিন্তু উনার এই ভাষণ দিচ্ছেন। কিন্তু এটাতে মনে হচ্ছে না এটাতে উনাদের গ্রহন যোগ্যতা বাড়ছে না। লাঠি নিয়ে আসতে বলছেন, আবার তার সাথে পতাকা নিয়ে আসতে বলছেন। আমার মনে হয় উনারা (বিএনপি) আবার একটা ভুল ট্রেকে যাচ্ছেন, যেভাবে ২০১৩-৩-১৪তে গিয়েছেন।

এমপি শামীম ওসমান বলেন, আমি একটা জিনিস বলতে চাই উনাদের উদ্দেশ্যে। তবে আমরা বলবো না আমরা পারফেক্ট। বা অন্য দল যারা করে তারা পারফেক্ট। প্রত্যাকটা জায়গায় ভালো মানুষ আছে খারাপ মানুষ আছে। আমাদের কি এখানেই গন্ডি থাকবে আমরা বাশের লাঠি দিয়ে মারামারি করবো।

এ সময় ‘রাজককাহন’ নামক একটি টক-শোতে আরও অতিথি উপস্থিত ছিলেন, বিএনপি নেত্রী সংরক্ষিত নারী আসন-৫০ থেকে নির্বাচিত জাতীয় সংসদ সদস্য রুমিন ফারহানা, জাতীয় পার্টির বগুড়া-৬ আসনের সংসদ সদস্য নুরুল ইসলাম ওমর।

,