‘লকডাউন’ রসূলবাগ (ছবিতে…)

0

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট, লাইভ নারায়ণগঞ্জ: গত ৩০ মার্চ কুর্মিটোলা হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় এক নারীর মৃত্যু হয়। ওই নারী নারায়ণগঞ্জ সিটি করপোরেশনের ২৩ নং ওয়ার্ডের রসূলবাগ এলাকার বাসিন্দা ছিলেন। ৫০ বছর বয়সী ওই মৃত নারীর নমুনা পরীক্ষা করে তার দেহে করোনা সংক্রমনের প্রমাণ পাওয়া গেছে।

এর সংবাদের তথ্য প্রমান যাচাই বাছাই করে, করোনাভাইরাসের সংক্রমণ ঠেকাতে নারায়ণগঞ্জ সিটি করপোরেশনের ২৩ নং ওয়ার্ডের রসূলবাগ এলাকাকে ‘লকডাউন’ করে দেয়া হয়। রসূলবাগ জিএ রোডের আশেপাশের প্রায় এক শত বাড়ি লকডাউনের আওয়াতায় থাকবে৷ এলাকাজুড়ে প্রশাসনের বিশেষ নজরদারি থাকবে।  বৃহস্পতিবার (২ এপ্রিল) রাত সোয়া ১১টায় এ ঘোষণা দেয়া হয়। এর আগে, নারায়ণগঞ্জ সিভিল সার্জন, বন্দর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ও থানার অফিসার ইনচার্জ এলাকাটি পরিদর্শন করেন।

নারায়ণগঞ্জ সিভিল সার্জন ডা. মোহাম্মদ ইমতিয়াজ জানান, লকডাউন থাকা অবস্থায় ২৩ নং ওয়ার্ডের রসূলবাগে শুধু ঔষধের দোকান এবং অতিপ্রয়োজনীয় পণ্যের দোকান খোলা থাকবে। এছাড়া বাকি সবকিছু বন্ধ থাকবে। এ সময়ের মধ্যে ওয়ার্ডটি থেকে কেউ প্রবেশ করতে পারবেন না এবং সেখান থেকে বেরও হতে পারবেন না।

জেলা সিভিল সার্জন মোহাম্মদ ইমতিয়াজের নেতৃত্বে লক-ডাউন ঘোষনার সময় বন্দর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) শুক্লা সরকার, জেলা করোনাভাইরাস ফোকাল পারর্সন নারায়ণগঞ্জ সদর উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা. জাহিদুল ইসলাম, বন্দর উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা. আব্দুল কাদের, র‌্যাব-১১ সহকারী পুলিশ সুপার মোস্তাফিজুর রহমান, বন্দর থানার ওসি রফিকুল ইসলাম, ২৩ নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর দুলাল প্রধান, মহানগর ছাত্রলীগের মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক সম্পাদক আরাফাত কবির ফাহিমসহ আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর সদস্যরা উপস্থিত ছিলেন।

 

0