শিক্ষকরা কোচিং সেন্টারের মাধ্যমে বানিজ্য করছে: ডিসি

0

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট, লাইভ নারায়ণগঞ্জ: জেলা প্রশাসক মো.জসিম উদ্দিন বলেছেন, শিক্ষার্থীদের মাঝে মুক্তিযুদ্ধের চেতনা ছড়িয়ে দিতে হবে। জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবর রহমান ক্ষুধা ও দারিদ্র মুক্ত সুখি সমৃদ্ধ বাংলাদেশের স্বপ্ন দেখেছিলেন। সে স্বপ্ন বাস্তবায়ণ করতে হলে সু-শিক্ষার বিকল্প নেই। শুধু শিক্ষিত হলেই হবে না সন্তাকে সু-শিক্ষায় শিক্ষিত হতে হবে।

সোমবার (২৭ জানুয়ারি) বিকেলে হরিহর পাড়া উচ্চ বিদ্যালয়ে নবীন বরন অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

হরিহর পাড়া উচ্চ বিদ্যালয় এনায়েতনগর ইউনিয়নের মধ্যে একটি উল্লেখযোগ্য শিক্ষা প্রতিষ্ঠান। নবীন বরন ও কৃতি শিক্ষার্থীদের মাঝে পুরস্কার বিতরন করা হয়। অনুষ্ঠানে বিদ্যালয়ের সভাপতি হাবিবুর রহমান লিটনের সভাপতিত্বে বিশেষ অতিথি হিসাবে অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক রেহানা আক্তার, উপজেলা নির্বাহী অফিসার নাহিদা বারিক, জেলা শিক্ষা অফিসার মো. শরিফুল ইসলাম উপস্থিত ছিলেন। এছাড়াও উপস্থিত ছিলেন, এনায়েতনগর ইউনিয়ণ পরিষদের চেয়ারম্যান আসাদুজ্জামান, প্রতিষ্ঠানকালীন দাতা সদস্য এম.এস. মোত্তালিব, দাতা সদস্য হাজী মো. সাফিজ উদ্দিন মাষ্টার, অভিভাবক সদস্য মো. হাফিজ, মো. কামাল হোসেন, আফসার উদ্দিন, রমিজ উদ্দিন ঢালী, মনোয়ারা বেগম, শিক্ষত প্রতিনিধি মো. জয়নাল আবেদীন, মো. সামসুদ্দিন, শাহানাজ আক্তার, সার্বিক ব্যবস্থাপনায় ছিলেন মুহাম্মদ মনির হোসেন।

প্রধান অতিথির বক্তব্যে জেলা প্রশাসক বলেন, হরিহর পাড়া উচ্চ বিদ্যালয়ের অনেক ঐতিহ্য রয়েছে, বিদ্যালয়ের রেজাল্ট আরো ভাল করতে হবে। বিদ্যালয়ে অন্তত ১০% শিক্ষার্থীকে ফুল এবং হাফ বেতন করতে হবে। নারায়ণগঞ্জে স্কুল বানিজ্য একটি বড় বানিজ্যে রূপ ধারন করছে। অভিযোগ আছে শিক্ষার্থীদের কাছ থেকে বেতন নেয় কিন্তু তা ফান্ডে জমা দেয় না। এখন শিক্ষকরা কোচিং সেন্টারের মাধ্যমে বানিজ্য করছে। আপনাদের মনে রাখতে হবে প্রতিটি বাবা মা তার সন্তাকে পবিত্র আমানত হিসাবে আপনাদের কাছে প্রেরন করেন। শিক্ষার্থীদের উৎসাহ দিবেন, তাদের চিন্তা ধারার শক্তি বাড়াতে হবে, বড়দের কি ভাবে সম্মান করতে হয় শিক্ষাতে হবে।

0