সোনারগাঁয়ে বেহাল সড়কে দুর্ভোগে পর্যটক

0

সোনারগাঁ করেসমপন্ডেন্ট, লাইভ নারায়ণগঞ্জ: সোনারগাঁয়ের পর্যটন নগরী পানাম ও বাংলাদেশ লোক ও কারু শিল্প ফাউন্ডেশন সড়কের বিভিন্ন জায়গায় গর্তের সৃষ্টি হয়ে পানি আর কাদা মাটি জমে বেহাল দশায় পরিণত হয়েছে। সড়কের এ বেহাল দশার কারনে সোনারগাঁয়ে বেড়াতে আসা শতশত পর্যটক ও স্থানীয় এলাকাবাসীর চলাচলে চরম দূর্ভোগ পোহাতে হচ্ছে।

জানা যায়, চলতি বছরের ফেব্রুয়ারি মাসে এ সড়কটি মেরামত করা হলেও কিছু দিনের মধ্যেই এ রাস্তায় খানাখন্দের সৃষ্টি হয়। সামন্য বৃষ্টি হলেই হাটু সমান পানি জমে যান চলাচলে বিঘ্ন ঘটছে। এদিকে সড়কটি সওজের অধীন রয়েছে বলে এলাকাবাসীর আন্দোলন ও বাংলাদেশ লোক ও কারুশিল্পফাউন্ডেশন কর্তৃপক্ষ লিখিত আবেদনের পরও কোন ফল পায়নি এলাকাবাসী। গত ৫ মাস আগেও য়েষ্টার্ন কন্সট্রাকশন এন্ড শিপবিল্ডার্স নামের একটি ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠান নিম্ন মানের ইট সুরকি দিয়ে কাজ সম্পন্ন করে বলে এলাকাবাসী অভিযোগ করনে।

সরেজমিন গিয়ে দেখা যায়, বাংলাদেশ লোক ও কারু শিল্প ফাউন্ডেশনের প্রধান ফটক থেকে মাত্র ১‘শ গজ দূরে খানা খন্দেও সৃষ্টি হয়ে বৃষ্টির পানি জমে আছে। এলাকাবাসীর অভিযোগ, ড্রেনেজ ব্যবস্থা না থাকায় বৃষ্টির পানি জমে এ সড়কের কয়েকটি স্থানে গর্তের সৃষ্টি হয়েছে।

বাংলাদেশ লোক ও কারু শিল্প ফাউন্ডেশনের উপ-পরিচালক রবিউল ইসলাম বলেন, গত ১৩ জুলাই শুক্রবার বাংলাদেশে সফররত ও আইসির ৫০ সদস্যের একটি প্রতিনিধিদল বাংলাদেশ লোক ও কারুশিল্প ফাউন্ডেশন ও পানামনগরী পরিদর্শন করতে এসে এ রাস্তার কারণে দূভোর্গে পড়েন। এ রাস্তাটির কারনে প্রতিদিন দেশী ও বিদেশী পর্যটকদের কাছে সোনারগাঁয়ের ভাবমূর্তি ক্ষুন্ন হচ্ছে।

নারায়ণগঞ্জ সড়ক বিভাগের উপ-সহকারী প্রকৌশলী মতিয়ার রহমান বলেন, সড়কটিতে ড্রেনেজ ব্যবস্থা না থাকায় বৃষ্টির পানি জমে খানাখন্দের সৃষ্টি হয়েছে। সড়কটি দ্রুতসংস্কার করতে উর্ধ্বতন র্কর্তৃপক্ষকে অবহিত করা হয়েছে। আশা করি দ্রুত সড়কটি ড্রেনেজ ব্যবস্থাসহ সংস্কার করা হবে।

0