১৯ দফা দাবিতে জনী টেক্সটাইল শ্রমিকদের সমাবেশ

লাইভ নারায়ণগঞ্জ: বেআইনিভাবে প্রতি মাসে ৪ দিনের কেটে নেয়া টাকা ফিরিয়ে দেয়া, ৮ ঘণ্টা কর্মদিবস চালু, ওভারটাইমে দ্বিগুণ মজুরি, ন্যূনতম মজুরির গেজেট অনুযায়ী প্রতি গ্রেডে মজুরি প্রদানসহ ১৯ দফা দাবিতে ফতুল্লায় অবস্থিত জনী টেক্সটাইল মিলস লিমিটেড এর শ্রমিকরা বিক্ষোভ সমাবেশ করেন। শনিবার (২২ জানুয়ারি) বেলা ১টায় নারায়ণগঞ্জ প্রেস ক্লাব ভবনের সামনে ওই বিক্ষোভ সমাবেশ করে। পরে সমাবেশ শেষে একটি মিছিল নিয়ে শহীদ মিনারে গিয়ে শেষ করে।


সমাবেশে নেতৃবৃন্দ বলেন, জনী টেক্সটাইল মিলস লিমিটেডে শ্রম আইন মানা হয় না। সেখানে ১২ ঘণ্টা ডিউটি চালানো হয়, ওভারটাইমে দ্বিগুণ মজুরি দেয়া হয় না, গ্রেড অনুযায়ী ন্যূনতম মজুরির বাস্তবায়ন করে নাই। সাত কর্মদিবসে মজুরি দেয়ার কথা আইনে বলা থাকলেও তা কখনো দেয়া হয় না। বরং কাজ কম অজুহাত দেখিয়ে নভেম্বর মাস থেকে মাসিক মজুরির শ্রমিকদের বেআইনিভাবে প্রতি মাসে ৪ দিনের টাকা কেটে নেয়া হচ্ছে। শ্রমিকরা সংকট সমাধানের কথা বললে তাদের মারধর ও অকথ্য গালাগাল করা হয়। শ্রমিকরা তাদের ন্যায্য পাওনাদির জন্য আইন অনুযায়ী ১৯ দফা দাবি দেয়। মালিক আলোচনা না করে শ্রমিকের মুখ বন্ধ করার জন্য শ্রমিকদের উপর অত্যাচার নির্যাতন বাড়িয়ে দিয়েছে।
নেতৃবৃন্দ কেটে নেয়া টাকা পরিশোধসহ ১৯ দফা অভিলম্বে মেনে নেয়ার আহ্বান জানান।

এ সময় কারখানার শ্রমিক মনিরুল ইসলামের সভাপতিত্বে সমাবেশে বক্তব্য রাখেন সমাজতান্ত্রিক শ্রমিক ফ্রন্ট নারায়ণগঞ্জ জেলার সভাপতি আবু নাঈম খান বিপ্লব, গার্মেন্টস শ্রমিক ফ্রন্ট নারায়ণগঞ্জ জেলার সভাপতি সেলিম মাহমুদ, সাধারণ সম্পাদক সাইফুল ইসলাম শরীফ, সিদ্ধিরগঞ্জ থানার সভাপতি রুহুল আমিন সোহাগ, কাঁচপুর শিল্পাঞ্চল শাখার সহ-সভাপতি আনোয়ার হোসেন, তল্লা-কাইয়ুমপুর শাখার উপদেষ্টা কামাল হোসেন, কারখানার শ্রমিক আবু হায়াত, রিয়াদ, ফরহাদ।