আড়াইহাজারে মাদ্রাসার শিক্ষার্থীকে গণধর্ষণ

লাইভ নারায়ণগঞ্জ: আড়াইহাজারে ৯ বছর বয়সী এক মাদ্রাসার শিক্ষার্থীকে সংঘবদ্ধ ধর্ষণের অভিযোগে মামলা হয়েছে। শনিবার রাতে দুই জনকে আসামী করে মামলাটি করেন ওই শিশুর মা।

মামলায় আসামী করা হয়, আড়াইহাজার উপজেলার ছনপাড়া এলাকার রফিকুল ইসলামের ছেলে প্রাইভেট শিক্ষক আল মাহি (২২)। ও তার ছাত্র একই এলাকার আঃ রশিদের ছেলে মো. আছলাম (১৮)।

মামলায় বলা হয়, নয় বছর বয়সী ওই শিশু ছনপাড়া এলাকার একটি মাদ্রাসায় পড়ালেখা করে। শিশুটিকে তার পরিবার ওই এলাকার রফিকুলের বাড়িতে আল মাহি নামের ওই যুবকের কাছে প্রাইভেট পড়তে ভর্তি করেন। সেখানে শিশুটিকে পড়াতো আল মাহি। ওই শিশুর সাথে পড়তো আছলাম নামের এক ছাত্র। তারা উভয় প্রায় সময় মেয়েটিকে শারীরিক নির্যাতন সহ ধর্ষণের চেষ্টা করতো। এক পর্যায়ে ২৯ জুন রাতে আটটার দিকে শিশুটি সেখানে পড়তো যায়। পড়ার রুমে আল মাহি ও আছলাম পালাক্রমে শিশুটিকে ধর্ষন করে। পরে তাকে কোরআন শরীফ ছুয়ে কসম দেয় ঘটনা কাউকে না জানাতে। রাত সাড়ে ৯ টার দিকে মেয়েটি বাড়ীতে গিয়ে তার মাকে সব খুলে বলে। পরে তিনি তার স্বামী সহ আত্মীয় স্বজনদের ঘটনা জানান।
আড়াইহাজার থানার ভারপ্রাপ্ত আজিজুল হক এসব তথ্য নিশ্চিত করেছেন। তিনি জানান, মামলার আসামীদের গ্রেপ্তারের জন্য অভিযান চলছে। দ্রুত তাদের গ্রেপ্তার করে আইনের আওতায় আনা হবে।