জমে উঠেছে পূজোর কেনাকাটা

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট, লাইভ নারায়ণগঞ্জ: আর কিছুদিন পর শুরু হবে হিন্দু সম্প্রদায়ের সর্ব বৃহত্তম ধর্মীয় উৎসব শারদীয় দুর্গাপূজা। পূজোকে ঘিরে জমে উঠেছে নারায়ণগঞ্জ শহরের মার্কেট গুলো। নতুন পোশাক কিনতে শপিংমল, মার্কেটগুলোতে সকাল থেকে ক্রেতাদের ভিড় লক্ষ করা গেছে।

রোববার (২৫ সেপ্টেম্বর) সকাল থেকে শহরের সমবায়, মার্ক টাওয়ার, হক প্লাজা, সায়াম প্লাজা, শান্তনা মার্কেট, সোনারবাংলা মার্কেটসহ ডিআইটি ও ১নং গেটের বিভিন্ন স্থান ঘুরে এমন চিত্র দেখা গেছে।

শুধু মার্কেটগুলোতেই নয়, নগরীর ফুটপাত গুলোতেও ভিড় ছিলো দেখার মতো। গত ২ বছর করোনার বিধিনিষেধ থাকায় প্রতিবছরের ন্যায় আশানুরূপ বিক্রি করতে পারেনি দোকানিরা। এ বছরে নেই কোনো রাষ্ট্রীয় বিধি নিষেধ। ক্রেতাদের ভিড় বেশি থাকায় এবং বিক্রি ভালো হওয়ায় দোকানিরা খুশি।

এদিকে, এবারে পূজায় তৈরি পোশাকের পাশাপাশি, আলাদা ভাবে কাপর কিনে শার্ট, প্যান্ট, শাড়ি তৈরির চাহিদাও বেড়েছে। অন্যদিকে, পূজায় প্রতিমা সাজানোর সরঞ্জাম কিনতেও মার্কেটে ভিড় করেছে ক্রেতারা।

পূজোর কেনাকেটা করতে নিতাইগঞ্জ থেকে নগরীর নবাব সিরাজউদ্দৌলা সড়কে রেলওয়ে মার্কেটে এসেছেন মোহন চক্রবর্তী। তিনি বলেন, ‘পূজার মুকুট, পূজার শাড়ি, পূজার গয়না, পূজার চুড়া, শাড়িসুড়ি এইগুলা কিনতেছি। আমরা মালাসহ পূজার যা যা লাগে সবই মোটামুটি কিনতেছি।’

নগরীর সমবায় মার্কেটে বাচ্চাদের জন্য কেনাকাট করতে এসেছেন বেলা রানী দাস। তিনি বলেন,‘ পূজো উপলক্ষে বাচ্চাদের জন্য কিছু কেনাকাটা করতে এসেছি। নিজের জন্যও কেনাকাটা করবো।’

নগরীর বিভিন্ন দোকানির সাথে আলাপ হয় লাইভ নারায়ণগঞ্জের এই প্রতিবেদকের। তারা জানান, আগের চেয়ে বিক্রি ভালোই হচ্ছে। তবে, দাম নিয়ে অনেকেই প্রশ্ন তুলছে। বিভিন্ন জিনিসপত্রের দামের কারনে পোশাকও বেশি দাকে কিনতে হচ্ছে। তাই দামএকটু বেড়েছে।

অপর দিকে, বেচাকেনায় ব্যাস্ত স্বর্ণ ব্যবসায়ীরাও। বছরের এই সময়ে বেশি বেচা হয় তাদের। কথা হয় নগরীর সর্নপট্টির ‘ঢাকা জুয়েলার্স’ এর কর্নধার দীপংকর সাহার সাথে। তিনি জানান, ‘সাধারণত দুর্গা পূজোতেই আমাদের বেচাকেনা একটু বাড়ে। এবারও বেড়েছে, তবে হ্যা গত দুই বছরের চেয়ে এবার একটু বেশি ক্রেতা আসছে। আশা করি বেচাকেনা ভালো হবে।’

তিনি আরও বলেন, ‘সোনা বাঁধানো ও ময়ূরের কারুকার্যখচিত চিকন শাঁখা বেশি চলছে। ক্রেতাদের চাহিদা মেটাতে বিভিন্ন দেশ থেকে বৈচিত্র্যময় ডিজাইনের শাঁখা আমদানি করা হয়েছে।’

উল্লেখ্য, আগামী ১ অক্টোবর শুরু হবে সনাতন ধর্মাবলম্বীদের সর্ব বৃহত্তম ধর্মীয় উৎসব শারদীয় দুর্গাপূজা। ২ অক্টোবর দেবীর সপ্তমীবিহিত, ৩ অক্টোবর দেবীর মহাঅষ্টমীবিহিত, কুমারী পূজা, সন্ধি পূজা, ৪ অক্টোবর দেবীর নবমীবিহিত এবং ৫ অক্টোবর দশমীবিহিত পূজা সমাপন ও দর্শন বিসর্জন এবং সন্ধ্যা আরত্রিকের পর প্রতিমা বিসর্জনের মধ্যদিয়ে শেষ হবে সনাতন ধর্মাবলম্বীদের সর্ব বৃহত্তম এই ধর্মীয় উৎসব।