ডিসি অফিসে শামীম ওসমান ‘চাঁদাবাজি -নদী দখল কারা করে? বন্ধ করেন, অনিয়ম মানবো না’

0

লাইভ নারায়ণগঞ্জ: ‘পাগলা এলাকায় বুড়িগঙ্গা নদীর তীরে বিআইডব্লিউটিএ যে ওয়াকওয়ে তৈরি করেছে, তা দখল করে মালপত্র লোড-আনলোডের সময় চাঁদাবাজি হয়। এখান থেকে মাসে পাঁচ লাখ টাকা চাঁদা আদায় করা হয়। এ চাঁদাবাজি কারা করে? কারা নদী দখল করে?’

জেলা প্রশাসকের কার্যালয়ে জেলার উন্নয়ন ও সমন্বয় কমিটির সভায় সোমবার (২২ ফেব্রুয়ারি) দুপুরে এ কথা বলেন নারায়ণগঞ্জ-৪ আসনের সংসদ সদস্য শামীম ওসমান।

তাঁর ভাষ্য, ‘শীতলক্ষ্যা নদীর কাঁচপুর ব্রীজের নিচে খাজনা আদায় করছে বিআইডব্লিউটিএ। সেই টাকা কার পকেটে যায়? বিভাগের লোকজনের পকেটে, না ইউনিয়ন নেতার পকেটে? এটা সরকারের সম্পত্তি। সরকারকে রাজস্ব আদায়ের ব্যবস্থা করে দেন। এটা বন্ধ করেন। এ ধরনের অনিয়ম মানবো না।’

জেলা প্রশাসক মোস্তাইন বিল্লাহ এর সভাপতিত্বে সভায় উপস্থিত ছিলেন অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (প্রশাসন) মোস্তাফিজুর রহমান, সিভিল সার্জন ইমতিয়াজ আহমেদ।

শামীম ওসমান বলেন, ‘জনগণ জবাব চায়। আপনারা কোন এলাকায় কী কাজ করেন, তা জেলা প্রশাসকের কাছে দিবেন। এ ছাড়া কীভাবে আরও উন্নয়ন করা যায়, সে ব্যাপারে পরিকল্পনা করে আমাকে জানাবেন।’

এ সময় জেলা প্রশাসক মোস্তাইন বিল্লাহ বিভিন্ন উন্নয়ন প্রকল্প বাস্তবায়নে যে সকল দ্বিপাক্ষীয় বা বহুপাক্ষীয় সমস্যা রয়েছে সেগুলোর বিষয়ে আইনানুগ সিদ্ধান্ত দেন। এছাড়াও তিনি জেলা প্রশাসনের বিভিন্ন উদ্যোগগুলো সকলকে অবহিত করেন এবং বাস্তবায়নে সংশ্লিষ্ট সকলের সহযোগিতা কামনা করেন।

0