নয়ন মেমোরিয়াল ক্রিকেট ক্লাবকে ট্রফি তুলে দিলেন বিসিবি’র পরিচালক টিটু

লাইভ নারায়ণগঞ্জ: দুই দলই চলতি মৌসুমের দ্বিতীয় বিভাগে খেলার যোগ্যতা অর্জন করেছে। ময়দানি লড়াইয়ে কে সেরা সেটারই লড়াই হয়েছে।শুক্রবার (২০ মে) সামসুজ্জোহা ক্রীড়া কমপ্লেক্সের ক্রিকেট মাঠে ওই লড়াই দেখেছে দর্শক।

আগের রাতে বৃষ্টির কারণে পীচ ভেজা থাকায় আম্পায়ারদ্বয় খেলাটি টি-টুয়েন্টি হিসেবে নির্ধারণ করে দেন। টস জিতে নয়ন মেমোরিয়ালের অধিনায়ক ব্যাট করতে পাঠান ইয়ুথ এনার্জেটিক সোসাইটিকে। দলটি মূলত ৫০ ওভারে খেলায় অভ্যস্ত। টি-টুয়েন্টি খেলার মত খেলোয়াড় না থাকায় ১৯ ওভার ১ বলে ৬১ রানে অলআউট হয়ে যায়।

সিয়াম করেন ১৮ রান। হাসান সিকদার ১৭ রানে আউট হন। অতিরিক্ত ১৫ রানে যোগ হয়ে পঞ্চাশের গন্ডি পার করে। ২০ ওভারে ৬২ রান করলে জয়। এমন সমীকরণে নয়ন মেমোরিয়াল ক্রিকেট ক্লাব ১ উইকেট খুইয়ে ৬২ রান করে জিতে নেয় শিরোপা। চয়ন ২০ রানে এবং সিয়াম ১২ রানে অপরাজিত থাকেন। নাইম বরাত আউট হন ১১ রানে। অতিরিক্ত থেকে যোগ হয় ১৮ রান।

ক্রিকেট উপ-কমিটির আহ্বায়ক ফারুক বিন ইউসুফ পাপ্পুর সভাপতিত্বে খেলা শেষে পুরস্কার প্রদান করেন বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডের পরিচালক ও মিডিয়া কমিটির চেয়ারম্যান তানভীর আহমেদ টিটু। এ সময় অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন ক্রীড়া সংস্থার যুগ্ম সম্পাদক খোরশেদ আলম নাসির, কার্যকরী সদস্য জাকির হোসেন শাহিন, জাহাঙ্গীর আলম,মোঃ আসলাম,ফিরোজ মাহমুদ সামা,মাহবুব হোসেন বিজন,মাহবুবুল হক উজ্জল,গৌতম কুমার সাহা প্রমুখ।

সংক্ষিপ্ত স্কোর-
ইয়ূথ এনার্জেটিক সোসাইটি: ৬১/১০(১৯ ভার ১ বল) সিয়াম-১৮,হাসান-১৭। অতিরিক্ত-১৫। সিয়াম-২/১৫,শাওন-২/১২।

নয়ন মেমোরিয়াল ক্রিকেট ক্লাব: ৬২/১(১৪ ওভার ১ বল) চয়ন-২০,সিয়াম-১২,বরাত-১১। অতিরিক্ত-১৮। ইভান-১/৮।