ফতুল্লায় শিশু ধর্ষণে অতিরিক্ত রক্ত ক্ষরণ, অভিযুক্ত গ্রেপ্তার

0

লাইভ নারায়ণগঞ্জ: ঢাকায় ও-লেভেল’র শিক্ষার্থীকে ধর্ষণের পর অতিরিক্ত রক্ত ক্ষরণের রেশ না কাটতেই, এবার নারায়ণগঞ্জে সেই ঘটনার আংশিক পুনরাবৃত্তি ঘটেছে।

৯ জানুয়ারী ( শনিবার ) রাতে ফতুল্লার ভূইঘর এলাকায় চতুর্থ শ্রেণীর ১০ বছরের এক শিশুকে ধর্ষণের পর অতিরিক্ত রক্ত ক্ষরণের ঘটনা ঘটেছে।

এ ঘটনায় ১০ জানুয়ারী ( রোববার ) রাতে অভিযুক্ত ধর্ষক রাকিবকে(২২) গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। রাকিব ভূইঘরের কাজীবাড়ী এলাকার মোশারফ হোসেনের ছেলে। সে পিকআপের হেলপার হিসেবে কাজ করতো বলে জানায় পুলিশ।

ফতুল্লা মডেল থানার সাব-ইন্সপেক্টর(এসআই) জাকির হোসেন মাসুদ জানান, চর্তুথ শ্রেণীর ওই শিক্ষার্থী(১০) শনিবার রাত আনুমানিক ১০টার দিকে টয়লেটে যায়। সেখান থেকে ঘরে ফেরার পথে রাকিব তার ঘরে নিয়ে শিশুটিকে ধর্ষণ করে। পরবর্তীতে শিশুটি অচেতন অবস্থায় থাকলে, বাবা মা খুঁজে তাকে উদ্ধার করে। এতে শিশুটির অতিরিক্ত রক্ত ক্ষরণ হয়েছে। এ ঘটনায় অভিযুক্ত রাকিবকে তার বাসা থেকে রোববার গ্রেপ্তার করা হয়েছে। মামলা শেষে তাকে আজই আদালতে প্রেরণ করা হবে। শিশুটি বর্তমানে হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছে।

এ বিষয়ে নারায়ণগঞ্জ সদর ১০০শয্যা হাসপাতালের(ভিক্টোরিয়া) আবাসিক চিকিৎসক ডা.আসাদুজ্জামান বলেন, শিশুটির অতিরিক্ত রক্ষ ক্ষরণ হয়েছি। বর্তমানে তার অবস্থা স্থিতিশীল রয়েছে, চিকিৎসা চলছে। সকল কার্যক্রম শেষে তার শারীরিক অবস্থা স্বাভাবিক হলে, ছাড়পত্র দেয়া হবে।

0