বিএনপি শুধু বার নয়, ওরা দেশ বিক্রি করে দিতে চায়: এড. খোকন সাহা

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট, লাইভ নারায়ণগঞ্জ: নারায়ণগঞ্জ মহানগর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এড. খোকন সাহা বলেছেন, গত বছর বিএনপির বন্ধুরা বলেছিলো, আমরা নাকি বার ভবনের নামে মুলা ঝুলায় রাখছি। আপনারা আগামী দশ বছরে দেখবেন, এই মুলাটা কত বড় হয়। যেখানে শামীম ওসমানের মতো ডায়নামিক নেতা আছে, সেলিম ওসমানের মতো দানবীর আছে, সেখানে এই মুলার যত্ন করার জন্য যা দরকার সেটার যোগানও তারা দেন। আর এজন্যই এই মুলা (বার ভবন) আরও বড় হবে। ২০১০ সালে আমি এই ডিজিটাল বার ভবনের স্বপ্ন দেখেছিলাম। আর বর্তমানে জুয়েল-মোহসিন আমাদের স্বপ্ন বাস্তবায়ন করেছে।

নারায়ণগঞ্জ জেলা আইনজীবী সমিতির নির্বাচন উপলক্ষ্যে মঙ্গলবার (২৪ জানুয়ারি) দুপুরে আদালত প্রাঙ্গনে বঙ্গবন্ধু আওয়ামী আইনজীবী পরিষদের নির্বাচনী প্রচারণা শেষে তিনি এসব কথা বলেন।

খোকন সাহা বলেন, আমরা শেখ হাসিনার কর্মী, উন্নয়নে বিশ্বাস করি। এই আদালতে অনেক আইনজীবী আছে যাদের বয়স ৩৩ হয় নাই, আমার সন্তান সমতুল্য। আমি তাদের পালসটা উপলব্ধি করি। আগামী ৩০ তারিখে যদি ১০০ ভোট কাষ্ট হয়, তাহলে ৭০টা ভোট আমরা পাবো। ভোট আনতে হলে আইনজীবীদের সেবা করতে হয়, তাদের পাশে থাকতে হয়। এবারও ১০ ভাগ সুষ্ঠ ভোট হবে। সাংবাদিক ভাইয়েরা নির্বাচনের দিন সঠিক ভাবে দায়িত্ব পালন করবেন, যা আপনারা সমসময় করেন। যদি প্রমান করতে পারেন যে, নির্বাচনে কোন কারচুপি হয়েছে; তাহলে এই বার আমি ছেড়ে দিবো।

বিএনপিকে উদ্দেশ্য করে এড. খোকন সাহা বলেন, ওরা আগুন সন্ত্রাসীদের শিষ্যত্ব গ্রহণ করেছে। তাদের নেত্রী এতিমে হক মেরে খাওয়ার দায়ে জেল খাটছেন। আর আমার নেত্রী শেখ হাসিনার করুনায় বাসায় বসে সে জেল খাটছে। আর তারেক জিয়া, ও তো দুর্নীতির বিরাট বড় চ্যাম্পিয়ন। ২০০১ সালে কারচুপি করে ক্ষমতায় এসেছিলো, এছাড়া বিভিন্ন সময় ওরা কারচুপির সাথে জরিত। ওরা বার কেনো, ওরা তো দেশই বিক্রি করে দিতে চায়।

এসময় উপস্থিত ছিলেন সিনিয়র আইনজীবী এড. মাসুদ উর রউফ, পিপি এড. মনিরুজ্জামান বুলবুল, সাধারণ সম্পাদক পদপ্রার্থী এড. মোহসীন মিয়াসহ প্যানেলের সকল আইনজীবী এবং তাদের সমর্থক আইনজীবীবৃন্দ।