বেতন চাওয়ায় গুলি খেয়ে মরতে হচ্ছে: জাহিদ সুজন

0

লাইভ নারায়ণগঞ্জ: বাংলাদেশ ছাত্র ফেডারেশনের কেন্দ্রীয় সাধারণ সম্পাদক জাহিদ সুজন বলেছেন, বাংলাদেশে কোন আইনের প্রয়োগ নেই বরং দুঃশাসন জারি আছে। সরকার জনগণের পেটে ভাতের যোগান দিতে না পারলেও গুলির যোগান দিচ্ছে ঠিকই । বেতন চাওয়ার অপরাধে গুলি খেয়ে মরতে হচ্ছে স্বাধীনতার ৫০ বছরে দাঁড়িয়ে। এর চেয়ে লজ্জা ও অপমান বাংলাদেশের আর কিছু হতেই পারেনা। জনগণ এই হত্যার প্রতিশোধ নিবে গণআন্দোলনের মাধ্যমে।

রবিবার (১৮ এপ্রিল) বিকাল ৪ টায় নারায়ণগঞ্জ প্রেস ক্লাব ভবনের সামনে, বাঁশখালীতে পুলিশের গুলিতে আন্দোলনরত ৫জন নিহত শ্রমিকদের ক্ষতিপূরণ ও হামলাকারীদের বিচারের দাবিতে মানববন্ধনে তিনি এসব কথা বলেন।

তিনি বলেন, বাংলাদেশে এখন একটি ভয় ও আতঙ্কের পরিস্থিতি বিরাজ করছে। সামান্য ঘটনাকে কেন্দ্র করে পুলিশ নির্বিচারে গুলি করছে। দেশের আইন-শৃঙ্খলা নিয়ন্ত্রনে পুলিশ সম্পূর্ণ ব্যর্থ। জনগণের নিরাপত্তা দেবার বদলে নিরাপত্তা কেড়ে নিচ্ছে। নিরাপত্তা নামক সাংবিধানিক অধিকার জনগণ ভোগ করতে পারছে না।

এ সময় ছাত্র ফেডারেশন নারায়ণগঞ্জ জেলার সভাপতি ইলিয়াস জামান বলেন, নিহত শ্রমিকদের এক জীবনের আয়ের সমান ক্ষতিপূরণ দিতে হবে। নিরীহ শ্রমিকদের উপর যারা গুলি চালিয়েছে ও নির্দেশ দিয়েছে তাদের বিচারের আওতায় আনতে হবে। পুলিশ ও সরকারের গণবিরোধী অবস্থান ও রাষ্ট্রীয় নিপীড়ন বন্ধ করতে হবে। পরিবেশ বিধ্বংসী কয়লা ভিত্তিক তাপ বিদ্যুৎ কেন্দ্র বন্ধ করে বিকল্প নবায়নযোগ্য পরিবেশবান্ধব বিদ্যুৎ কেন্দ্র নির্মাণ করতে হবে।

ছাত্র ফেডারেশন নারায়ণগঞ্জ জেলার সভাপতি ইলিয়াস জামানের সভাপতিত্বে ও সাধারণ সম্পাদক ফারহানা মুনার সঞ্চালনায় উপস্থিত ছিলেন, গণসংহতি আন্দোলনের শিক্ষা বিষয়ক সম্পাদক মশিউর রহমান খান রিচার্ড, গার্মেন্টস শ্রমিক সংহতির মেহেদী হাসান উজ্জল, জেলা ছাত্র ফেডারেশনের সাংগঠনিক সম্পাদক সাইদুর রহমান, রাজনৈতিক শিক্ষা বিষয়ক সম্পাদক রাকিবুল রাকিব, প্রচার সম্পাদক রাকিবুল হাসান ইফতি, দপ্তর সম্পাদক ইউশা, হামিদ, আশা, সায়হাম, আকাশ প্রমুখ।

0