রূপগঞ্জে সম্মেলনে হামলা, সভ্য দেশের মানুষ প্রত্যাশা করে না: সাবেক এমপি গিয়াসউদ্দিন

লাইভ নারায়ণগঞ্জ: রূপগঞ্জের ভুলতা ইউনিয়ন বিএনপির দ্বিবার্ষিক সন্মেলনস্থলে ক্ষমতাসিন আওয়ামী লীগ, যুবলীগ ও ছাত্রলীগের হামলা ও ভাঙচুরের ঘটনায় তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়েছেন নারায়ণগঞ্জ-৪ আসনের সাবেক সংসদ সদস্য ও বিএনপির জাতীয় নির্বাহী কমিটির সদস্য বীর মুক্তিযোদ্ধা মুহাম্মদ গিয়াসউদ্দিন।

রবিবার (২২ মে) দুপুরের গণমাধ্যমে প্রেরিত এক বার্তায় সাবেক এই সংসদ সদস্য বলেন, ‘সম্মেলনের মাধ্যমে কমিটি গঠন প্রক্রিয়া একটি রাজনৈতিক দলের সাংগঠনিক কার্যক্রম। এই সরকার এই সাংগঠনিক কার্যক্রমও সহ্য করতে পারছেনা। তারা স্বৈরাচারী কায়দায় ক্ষমতায় টিকে থাকার জন্য দানবে পরিনত হয়েছে।

তিনি আরও বলেন, তাদের অন্যায়-অবিচার, দুর্নীতি ও লুটপাটের প্রতিবাদ আজ মানুষ করতে পারে না। জুলুম নির্যাতনের মাধ্যমে তারা জনসাধারণের মুখ বন্ধ করে রেখেছে। কেউ প্রতিবাদ করতে গেলেই তার উপর বিভিন্ন কায়দায় নির্যাতন চালানো হয়। এই সরকার গণতন্ত্রে বিশ্বাস করে না। যার কারণে সরকারের গুন্ডা বাহিনী রূপগঞ্জের ভুলতা ইউনিয়ন বিএনপির সম্মেলনে তান্ডব চালিয়েছে। এমন ঘটনার নজির কোনো গলতান্ত্রিক, সভ্য দেশের মানুষ প্রত্যাশা করে না।

তিনি উল্লেখ করেন, সরকারি দলের প্রতিহিংসার মাত্রা চূড়ান্ত সীমা অতিক্রম করেছে। তারা এতটাই ভয়াবহ হয়ে উঠেছে, তারা কেবল সম্মেলনই পন্ড করে নাই, নেতাকর্মীদের বাড়িঘরেও হামলা চালিয়ে ভাঙচুর চালিয়েছে। এই ঘটনায় তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানাচ্ছি। একই সঙ্গে ন্যাক্কারজক এই ঘটনায় জড়িত সন্ত্রাসীদের গ্রেপ্তার করে আইনের আওতায় আনার জন্য প্রশাসনের কাছে দাবি রাখছি।